hotel_motel

হোটেল ও মোটেল এর মধ্যে কি পার্থক্য জেনে নিন (বিস্তারিত)

 

আজকে আমাদের আলোচনার টপিক হচ্ছে হোটেল ও মোটেল নিয়ে স্পেশ্যাল টিউন হোটেল ও মোটেল এর মধ্যে পার্থক্য।

আমাদের চলার পথে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন জায়গায় যাওয়ার প্রয়োজন হয়। এমনও হয়ে থাকে আমরা এমন জায়গায় গিয়ে থাকি যেখানে আমাদের পরিচিত কেউ থাকে না, সেই সব জায়গায় হোটেল নাকি মোটেলে উঠবো এই নিয়ে পড়ে যাই বিপাকে।

আপনিও নিশ্চয় কোন এক সময় শহরে বেড়াতে গিয়ে পড়তে পারেন এমন বিপদে। হয়তো পরিচিত কেউ নাই এমন জায়গায় বেড়াতে গেছেন। 

এমন সময় যদি সমস্যায় পড়েন তবে হোটেল কিংবা মোটেল উভয়ই আপনার জন্য অনেক উপকারী হবে । 

আর বিপাকে পড়তে হবে না। আশা করি পোস্টটি পড়লে হোটেল এবং মোটেল এর পুরো ধারণা পেয়ে যাবেন।

আমাদের দেশের অনেক মানুষ রয়েছেন যারা হোটেল শব্দটির সাথে বেশি পরিচিত তবে মোটেল শব্দটি তাদের কাছে অপরিচিত একটি শব্দ।

 

রিসোর্ট ব্যবসা

 

তাদের অজানার বিষয় কিংবা যাদের হালকা ধারণা রয়েছে তাদের বিস্তর ধারণা দেবার সামান্য প্রচেষ্টা করা হয়েছে মাত্র।

আমরা দেখবো হোটেল এবং মোটেল এর মধ্যে কি ধরণের পার্থক্য রয়েছে?

চলুন তাহলে জেনে নিই হোটেল ও মোটেলের মধ্যে পার্থক্য কী?

 

Hotel বনাম মোটেল

 

Hotel (হোটেল)

হোটেল কাকে বলে? হোটেল এবং মোটেল নাম দুটির কি পার্থক্য রয়েছে তার জন্য হোটেল শব্দটিকে বিশ্লেষণ করে দেখা যাক।

ফ্রেঞ্চ শব্দ থেকে আসা ১৬০০ সালের দিকে আবিস্কৃত হওয়া একটি কমন শব্দ হোটেল।

Hotel হচ্ছে এমন একটি জায়গা যেখানে পর্যটক এবং ভ্রমনকারীর জন্য থাকার ব্যবস্থা করা হয়।

পাশাপাশি সেখানে খাবারের ব্যবস্থা, বিনোদনের ব্যবস্থা সহ অন্যান্য সুবিধা থাকে। কি বুঝলেন মামা হোটেল ও মোটেল বলতে?

সুতরাং হোটেলে থাকা খাওয়ার সু-ব্যবস্থার পাশাপাশি নিরাপত্তার বিষয়টিও জোরদার করে দেখানো হয়।

একটি লম্বা সময় ধরে অবস্থান করার জন্য হোটেল চয়েজ করা একটি সেরা পছন্দ। তাহলে একটা নির্দিষ্ট সময় ধরে কাটিয়ে আসুন আপনার ফ্রেন্ডকে নিয়ে মনের সুখে।

 

হোটেল ও মোটেল

 

কিন্তু আপনি যদি যাত্রার মাঝপথে একটু বিরতি দিতে চান তবে আপনার জন্য সেরা পছন্দের একটি হিসেবে মোটেল বেছে নেয়া উচিত।

সুতরাং সহজভাবে বললে ,

হোটেল হচ্ছে এমন একটি জায়গা যেখানে আগন্তুকের থাকা খাওয়ার ব্যবস্থাসহ পাশাপাশি জিম বিনোদন এবং অন্যান্য সুযোগ সুবিধা থাকে।

বলতে গেলে আপনার পার্সোনাল অনেক কিছুই করতে পারেন এখানে।

 

অপরদিকে,

 

Motel (মোটেল)

মোটেল কি? আমেরিকা থেকে ১৯২০ এর দশকে মোটেল শব্দটির ধারণা ব্যাপকভাবে চালু হয়। মূলত হোটেল এবং মোটর এই দুই শব্দের সমন্বয়ে মোটেল শব্দটির উৎপত্তি।

হাইওয়ের পাশাপাশি অবস্থিত এমন একটি স্থান যেখানে পর্যটক কিংবা ভ্রমণকারী যাত্রাপথে কিছু সময়ের জন্য বিশ্রামের জন্য বিরতি নেন।

 

Motel কি?

 

মোটেল অর্থ কি? হোটেল এ আপনি থাকা খাওয়ার পাশাপাশি জিম, বিনোদনসহ অন্যান্য অনেক সুযোগ সুবিধা পেয়ে থাকবেন। তবে মোটেল এর ক্ষেত্রে এত বেশি সুবিধা আপনি পাবেন না।

এখানে থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা থাকলেও হোটেল এর মত বাড়তি সুবিধা আপনি পাবেন না। একটি দীর্ঘ যাত্রায় বিরতি স্বরূপ পর্যটকরা মোটেল এ অবস্থান করে থাকেন।

এখানে আপনার সকল সুযোগ সুবিধা পাবেন না। তাই যদি কোন সমস্যায় পড়েন তবে আপনার জন্য হোটেল হচ্ছে ভাল চয়েজ।

 

হোটেল ও রেস্টুরেন্টের মধ্যে পার্থক্য

 

সুতরাং সহজে বলতে গেলে মোটেল হচ্ছে এমন একটি স্থান যেখানে আগন্তুকের থাকা খাওয়ার পাশাপাশি অন্যান্য সুযোগ সুবিধা যেমন, সুইমিং, জিম, বিনোদন এর ব্যবস্থা থাকে না।

মোটেলে অবস্থান করা যায় গাড়িসহ। হোটেল এর কিছু সুবিধা এবং মোটরযান রাখার জন্য কিছু বিশেষ সুবিধার কারণে একে মোটেল বলা হয়।

আশা করি হোটেল এবং মোটেল এই দুই শব্দ নিয়ে মনের মাঝে কোন দ্বিধা থাকার কথা নয়।

তাহলে,

হোটেল ও মোটেল এর মূল পার্থক্যগুলো একটু এক নজরে দেখার চেষ্টা করি।

 

হোটেলে উঠার পর পেটের মাঝে দেখা দিল সমস্যা। লেও ঠেলা, এবার হারা করমো কি বাহে! সমস্যা নাই কালোজিরা আপনাকে অনেকটা আরাম দিবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।

 

হোটেল ও মোটেলের মধ্যে তুলনা

হোটেল (Hotel) মোটেল (Motel)
হোটেলে থাকা খাওয়ার খরচ মোটেল এর তুলনায় বেশি মোটেলে থাকা খাওয়ার খরচ তুলনামূলক কম
হোটেলে থাকা খাওয়াসহ অন্যান্য অনেক সুবিধা পাওয়া যায়। যেমন, জিম, বিনোদন, সুইমিং ইত্যাদি। কিন্তু মোটেলে থাকা খাওয়ার পাশাপাশি বাড়তি অতিরিক্ত সুবিধা পাবেন না।
হোটেল এর অবস্থান শহরের যে কোন জায়গায় হতে পারে,

যেমন, শহরতলি, অবকাশের এলাকা, স্টেডিয়াম সংলগ্ন, বিমান বন্দর ইত্যাদি।

অপরদিকে, মোটেল এর অবস্থান মহাসড়কের পাশে অবস্থিত।

তবে শহরের উপ-অঞ্চল এলাকাতেও মোটেল দেখতে পাওয়া যায়।

 

তাহলে যাত্রাপথে কোনটি নির্বাচন করা ঠিক হবে হোটেল নাকি মোটেল?

হোটেল ও রেস্তোরাঁর মধ্যে পার্থক্য তো জেনে গেলেন এবার দেখুন তো কোনটা আপনার জন্য সেরা পছন্দের হবে?

আপনার যাত্রাস্থান, গন্তব্যস্থানের দূরত্ব, যাত্রাপথে কি পরিমাণ বিরতি নিবেন তার উপর বিবেচনা করে আপনি হোটেল অথবা মোটেল এর যে কোন একটি নির্বাচন করতে পারেন।

যেমন, ধরুন আপনি যাত্রাপথে গাড়িসহ দুই দিনের জন্য একটি স্থানে অবস্থান করবেন।

এমন অবস্থায় কোনটি নির্ধারণ করবেন হোটেল নাকি মোটেল? এর জন্য আপনাকে নিশ্চয় বিপাকে পড়তে হতে পারে?

এরূপ সমস্যা যদি হয়ে থাকে তাহলে আপনার জন্য সব থেকে সেরা হবে মোটেল নির্ধারণ করা।

কেননা হোটেল এর তুলনায় এখানে কম খরচে থাকতে পারবেন। গাড়িটিও সুরক্ষিত থাকবে।

এই প্রসঙ্গে একটি কথা মনে পড়ে গেল,

হোটেল নাকি মোটেল

একজন বিখ্যাত চলচিত্রাভিনেতা একদিন বিদেশ ভ্রমণে বের হবেন। যাত্রাপথে তার ৯০, ০০০০০ টাকার গাড়িটি কোথায় রাখবেন সেই বিষয়ে খুব চিন্তিত হয়ে পড়লেন।

সচরাচর আমরাও কিন্তু এমন অনেক সমস্যায় পড়ি। এসব সমস্যা কাটিয়ে ওঠার জন্য যদি নিয়মিত একনিষ্ট ভাবে সমস্যা সমাধানের জন্য চেষ্টা করি তাহলে অবশ্যই তা সমাধান করা সম্ভব হবে। 

এক পর্যায়ে তিনি ব্যাংকে গেলেন, ম্যানেজারকে বললেন আমার লোন লাগবে মাত্র ৫০,০০০ টাকা। ম্যানেজার তো তাকে খালি হাতে লোন দিতে পারে না।

 

হোটেল বনাম মোটেল

 

ব্যাংকের কিছু নিয়ম কানুন আছে,

তো সেই অভিনেতা বললেন ঠিক আছে ঐ যে বাইরে আমার নব্বই লক্ষ টাকার গাড়িটি রাখছি, এই নেন চাবি।

এই বলে চাবিটি দিয়ে ঐ অভিনেতা মশাই ব্যাংক থেকে বের হয়ে যাত্রা শুরু করে দিলেন। এবার ম্যানেজারের খুশি দেখে কে?

ম্যানেজার তো মহাখুশি। ম্যানেজার বাবাজি কি আর জানে ভদ্রলোকের মনে কি চলছে!

 

দেখুন তো, হোটেল, মোটেল, লজ আর একটি গেস্ট হাউসের মধ্যে পার্থক্যগুলো কি কি হতে পারে?

 

মাত্র ৫০,০০০ হাজার টাকার জন্য এত্ব টাকার গাড়ি কবজায়। কোন সমস্যায় নাই। তো ম্যানেজার তাকে ৫০,০০০ টাকা দিয়ে দিলেন।

এদিকে টাকা পেয়ে অভিনেতা বিদেশ ভ্রমনে গেলেন, ফিরে এসে ৫০,০০০ টাকা ফেরত দিয়ে গাড়িটি নিতে গেলেন।

ম্যানেজারের কৌতুহল হল জানার যে এত টাকার গাড়ি রেখে মাত্র ৫০,০০০ টাকা নেবার উদ্দেশ্য কি?

তিনি বললেন, দেখেন আমার বিদেশ যাওয়া জরুরী ছিল। যাত্রাপথে গাড়িটি সাথে নেয়া তো সম্ভব নয়। আবার এত টাকার গাড়ি কোথায় রাখবো সে নিয়েও চিন্তিত ছিলাম।

তাই ভাবলাম ব্যাংক থেকে টাকা নেই। টাকাও নেয়া হল সাথে গাড়িটিও সুরক্ষিত থাকল।

ম্যানেজার তো বেঁহুশ 😛 হেই বলে কি!!

তো বন্ধুরা আজ এ পর্যন্তই।

জীবনকে প্রযুক্তির সাথে জুড়িয়ে দিতে নিত্যটিউনের সাথেই থাকুন, জীবন, তথ্য ও প্রযুক্তির জ্ঞানকে সমৃদ্ধ করুন।

আল্লাহ্ হাফেজ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *