refrigerator

কম দামে ভাল মানের ফ্রিজ-২০২২ (আর ঠকতে হবে না!)

 

আপনি কি এমন একটি ফ্রিজের অনুসন্ধান করছেন যা খুব কম বাজেটের মধ্যে পাওয়া সম্ভব? কম বাজেট বলে যে এর ফিচার কম হবে তা কিন্তু নয়! এগুলো সত্যিই অনেক কম বাজেটে অনেক বেশি বৈশিষ্ট্যযুক্ত ফ্রিজ। সো বন্ধুরা চলুন জেনে নিবেন কম দামে ভাল মানের ফ্রিজ-২০২২ সম্পর্কে।

আপনি কি একটি কম দামে ডিপ ফ্রিজ খুঁজছেন? ছোট ডিপ ফ্রিজের দাম কত জানতে চাচ্ছেন?

আজকে আমরা আলোচনা করতে চলেছি মিনি ফ্রিজের দাম কেমন হতে পারে এ বিষয় নিয়ে।

আজকে ২০২২ এ এসে বিজ্ঞানের চরম উৎকর্ষের সময় আমরা অনেক কিছু ক্রয়ের বেলায় দ্বিধা-দ্বন্দের মধ্যে পড়ে যাই।

এটা কিন্তু উন্নতির বহিঃপ্রকাশ নয়। আমরা যদি আমাদের চারপাশে চোখ কান খোলা রেখে এগিয়ে যাই তাহলে নিশ্চিতভাবে একটি ভাল মানের ফ্রিজ আমরা পেয়ে যাব।

তাও আবার অবিশ্বাস্য মূল্যে। বিষয়টি অনেকেই কটুভাবে নিতে পারেন। তবে এটাই কিন্তু বাস্তব।

আপনি নিশ্চয় কাপড়ের দোকান থেকে কাপড় ক্রয় করে থাকেন।

একটি দোকানে যে কাপড় ৫০০ টাকাতে পাওয়া যায় অন্য আরেকটি দোকানে সেই একই কাপড় ৭০০ টাকাতে কিনতে হয়।

কখনও ভেবে দেখেছেন কি, কেন এমনটা হয়? শুধু কাপড়ের বেলায় যে এমন হয় তা কিন্তু নয়, আমাদের নিত্য প্রয়োজনীয় সকল পণ্যের ক্ষেত্রেই আমরা যদি একটু সচেতন না হই তাহলে নির্ঘাৎ ঠকে যাব।

তাহলে কি আমরা সচরাচর কোন কিছু কিনতে গিয়ে ঠকে যাই? হ্যাঁ বিষয়টি সত্যিই ভাবনীয়।

আমরা কিন্তু আজকের দিনে অনেক কিছু হিসেব ছাড়া করে ফেলি।

যা আমাদের জন্য মোটেই ভাল কিছু বয়ে আনে না। যাই হউক মূল আলোচনায় ফিরে আসি।

আমরা কম দামের কয়েকটি ভাল মানের ফ্রিজের বিষয়ে জানতে চলেছি।

কেন আপনি একটি ভালমানের ফ্রিজ কিনবেন? আজকে যে ফ্রিজগুলোর আলোচনা করা হবে এগুলো সাধারণত ১৫ হাজার থেকে ৪৫ হাজারের মধ্যেই আপনি পেয়ে যাবেন।

সুতরাং আপনার বাজেট সীমা অনুযায়ী পছন্দমত একটি ফ্রিজ কিনে নিন। প্রথমেই ফ্রিজ কেনার পূর্বে আমাদের জরুরী কিছু বিষয় জানা দরকার।

 

চলুন তাহলে জেনে নেয়া যাক কি সেই সব গুরুত্বপূর্ণ বিষয়?

কম দামে ভাল ফ্রিজ কেনার আগে জেনে নিন নিচের বিষয়গুলো-

ভালো মানের ফ্রিজ চেনার উপায় জানতে নিচের বৈশিষ্ট্যগুলো অবশ্যই খেয়াল রাখবেন-

  • আপনার চাহিদার দিক লক্ষ রেখে ফ্রিজ ক্রয় করুন।
  • বাজেটের দিকে তাকানোর আগে তার বৈশিষ্ট্যগুলো খেয়াল করুন।
  • কত সেফটি হলে আপনার কাঙ্খিত চাহিদা পূরণ হতে পারে ভেবে দেখুন।
  • একটি ভাল মানের ব্র্যান্ড নির্বাচন করুন।
  • সচরাচর যে ব্র্যান্ডটি বেশি ভ্যালুয়াবল সেই সময় সেই ব্র্যান্ডকেই নির্বাচন করুন,
  • দুই ধরণের ফ্রিজের মধ্যে আপনি কোনটি পছন্দ করেন বেছে নিন যেমন ফ্রস্ট (শীতল প্রযুক্তির মাধ্যমে সরাসরি বরফ জমতে থাকে)/ননফ্রস্ট (ফ্রস্টের বিপরীত)।
  • একটি ভাল মানের ফ্রিজ মানে একটি ভাল মানের কমপ্রেশর। তাই ফ্রিজ কেনার পূর্বে ভাল কমপ্রেশর দেখে ফ্রিজ কিনুন।
  • একটি ৭ সেফটি ফ্রিজের কমপ্রেশর ক্ষমতা ৭০-৭৫ ওয়াট। অপরদিকে ১০-১২ সেফটির একটি ফ্রিজ ৯০-১০০ ওয়াটের মত হয়। আপনার চাহিদার দিক খেয়াল রেখে ফ্রিজ কিনুন।

তাহলে একটি ভালমানের অর্থাৎ,

উপরের বিষয়গুলো ফ্রিজ কেনার আগে করণীয় বিষয় হিসেবে স্বীকৃত, আপনাকে কিন্তু জানতেই  হবে, নতুবা ঠকার সমূহ সম্ভাবনা আছে।

উপরের বিষয়গুলো খেয়াল করলে আপনি নিশ্চয় ঠকবেন না বলে আমি বিশ্বাস করি।

এরপরেও আপনি নিচের ব্র্যান্ড এবং মডেলগুলোর মধ্যে ফ্রিজ কিনলে আশা করা যায় ভাল হবে।

তাহলে আপনার মনে প্রশ্ন আসতেই পারে যে,

কোন কোম্পানির ফ্রিজ ভালো?

চলুন আমরা জেনে নিই,

বাজারের সেরা ফ্রিজ সম্পর্কে

কম দামে ভাল মানের সেরা 8 টি ফ্রিজ

 

1. Walton WFD-1B6-GDEL-XX (অল্পের মধ্যে ‍তুষ্টি)

ব্র্যান্ড ওয়ালটন
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 132 লিটার
নেট ভলিয়াম 129 লিটার
কমপ্রেশর টাইপ V 0201- RSIR
কমপ্রেশর ইনপুট পাওয়ার (Watt): V 0201- 96.
থার্মোস্টার RoHS Certified.
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 600 ভোল্ট
ওয়ারেন্টি 12 বছর
কুলিং ইফেক্ট ফ্রিজার ক্যাবিনেট Less than -180C0Cto +50C.
ডিফ্রস্টিং অটোমেটিক/মানুয়াল মানুয়াল
ওজন 38/42.5 কেজি

 

ওয়ালটনের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে ১৬-১৮ হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 

 

কম দামের ফ্রিজ নাকি বেশি দামের ফ্রিজ কিনবেন?

 

২. Walton WFA-2A3-GDEL-XX (অল্পের মধ্যে ‍তুষ্টি)

ব্র্যান্ড ওয়ালটন
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 213 লিটার
নেট ভলিয়াম 176 লিটার
কমপ্রেশর টাইপ  RSCR
কমপ্রেশর ইনপুট পাওয়ার (Watt): V 0201- 96.
থার্মোস্টার RoHS Certified.
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 600 ভোল্ট
ওয়ারেন্টি 12 বছর
কুলিং ইফেক্ট ফ্রিজার ক্যাবিনেট  Less than -18℃, Refrigerator Cabinet 0℃ to +5℃
ডিফ্রস্টিং অটোমেটিক/মানুয়াল মানুয়াল
ওজন 42/45.5 কেজি

 

ওয়ালটনের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে 22-23 হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 মিনি ফ্রিজ প্রাইস ইন বাংলাদেশ

 

3. My One ML-195 (অল্পের মধ্যে ‍তুষ্টি)

ব্র্যান্ড My One
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 222 লিটার
তৈরী জার্মানীর PMDI & Polyol
গ্লাস ডর এই কারণে কখনও মরিচা পড়বে না
কুলিং সিস্টেম ৬ ডি কুলিং সিস্টেম 
টেকনোলজি ন্যানো টেকনোলজি
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 600 ভোল্ট
ওয়ারেন্টি 10 বছর
ফুড গ্রেড ম্যাটেরিয়াল 100% ফুড গ্রেড ম্যাটেরিয়াল

 

My One ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে ১৬-১৮ হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 

বাংলাদেশে কোন কোম্পানির ফ্রিজ ভালো

 

4. VISION GD RE-150L F TM (সুন্দর ডিজাইনের ফ্রিজ)

ব্র্যান্ড ভিশন
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 175 লিটার
নেট ভলিয়াম 150 লিটার
কমপ্রেশর ইনপুট পাওয়ার 70-75W,160-260V,50Hz
থার্মোস্টার এডজাস্টেবল
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 600 ভোল্ট
ওয়ারেন্টি 10 বছর
ওজন 52.20/47.86Kgs কেজি

 

ভিশন ব্র্যান্ডের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে 24-26 হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 

ওয়ারেন্টি এবং ইনভারটার নাকি ইন্ডাক্স টেকনোলজি দেখে ফ্রিজ কিনুন।

 

এতগুলো সম্পর্কে জানলাম কিন্তু আমাকে তো কনফিউশনের মধ্যে ফেলায়ে দিলেন! এখন কোন ধরনের ফ্রিজ ভালো হবে বুঝতে পারছি না তো!

 

5. Jamuna JE-170L CD Water Lily (খুব সুন্দর ডিজাইন)

ব্র্যান্ড জমুনা
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 170লিটার
নেট ভলিয়াম 102 লিটার
কমপ্রেশর ইনপুট পাওয়ার (Watt): V 0201- 96.
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 600 ভোল্ট
ওয়ারেন্টি 10 বছর
কুলিং ইফেক্ট Refrigerant r600a Gas
ওজন 51.90 কেজি

 

জমুনা ব্র্যান্ডের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে 22-24 হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 

 

6. Marcel MFD-A4D-GDEL (Softy Design Refrigerator)

ব্র্যান্ড Marcel
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 157 লিটার
নেট ভলিয়াম 144 লিটার
কমপ্রেশর টাইপ V 0201- RSIR
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 220-240V~ & 50Hz
ওয়ারেন্টি 12 বছর
ওজন 49.5 কেজি

বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী এবং পরিবেশ বান্ধব, লো-ভোল্টেজ অপারেশন এর অনন্য বৈশিষ্ট্য।

 

Marcel ব্র্যান্ডের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে 18-20 হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 

 

7. Minister M-175 Merun-VCM (Awesome Fridge)

ব্র্যান্ড Minister
টাইপ Frost
গ্রোস ভলিয়াম 175 লিটার
ডোর প্লেট VCM
Rated Voltage 220~240 V
থার্মোস্টার RoHS Certified.
রিকমেন্ডেড ভোল্টেজ ক্যাপাসিটি 600 ভোল্ট
ওয়ারেন্টি 10 বছর
ওজন 44 কেজি

 

Minister ব্র্যান্ডের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে ১৬-১৮ হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

 

 

8. Conion BE-290TGFB (Black) (সাধ্যের মধ্যেই সবটুকু স্বাদ)

ব্র্যান্ড কনিয়ন
টাইপ ডাইরেক্ট কুল
গ্রোস ভলিয়াম 290 লিটার
ডায়মেনশন 1850 x 585 x 548
থার্মোস্টার RoHS Certified.
ডিজাইন গ্লাস ডোর প্যানেল ডিজাইন
ওয়ারেন্টি 10 বছর
কালার ব্ল্যাক
ওজন 38/42.5 কেজি

 

কনিয়ন ব্র্যান্ডের ভাল মানের এই ফ্রিজটি আপনি বাজারে 44-46 হাজার টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন।

তো বন্ধুরা একটি ভাল মানের ফ্রিজ কেনার আগে উপরের বিষয়গুলো অবশ্যই খেয়াল করবেন।

সেই সাথে নিচের ৫টি বিষয় মাথায় রাখবেন।

  • কমপ্রেশর
  • ক্যাপাসিটি/ধারণক্ষমতা
  • বাজেট
  • ভোল্টেজ 
  • ওয়ারেন্টি

তাহলে,

কোন ফ্রিজ ভালো ফ্রস্ট না নন ফ্রস্ট?

 

একটি ভাল মানের ফ্রিজ কেনার আগে আমাদের আর একটি বিষয় খুব ভালভাবে খেয়াল রাখতে হবে তা হলো-

কোন ফ্রিজ বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী?

 

আপনি কি একটি কম দামের ভাল মানের ফটোকপি মেশিন খুঁজছেন? তাহলে দেখুন,

ফটোকপি মেশিন কেনার আগে

 

 

পরিশেষে,

তাহলে অল্প দামের ভাল মানের ফ্রিজ নিয়ে আলোচনা আজকের মত এ পর্যন্তই। মনে রাখবেন ফ্রিজটি কিন্তু আপনি দু-এক দিনের জন্য কিনছেন না!

কয়েক বছরের জন্য তাই দীর্ঘসময় ব্যবহারের জন্য অন্তত বাজার যাচাই করুন।

ভাল মানের ব্র্যান্ড নির্বাচন করুন। সেই সাথে একটি ভাল মানের ফ্রিজের কমপ্রেশর ভালভাবে দেখে নিন।

আপনাদের সুবিধার জন্য আমি রিসার্চ করে উপরের ৮ টি বিভিন্ন মডেলের ফ্রিজের ডিটেইলস প্রাইসসহ দিয়েছি।

সার্বিক দিক বিবেচনা  করে একটি ভাল মানের ফ্রিজ কিনুন এই প্রত্যাশায় আজকের মত বিদায় নিচ্ছি।

আল্লাহ্ হাফেজ।

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *